BBC navigation

লন্ডনে তুর্কী দূতাবাসের সামনে বাংলাদেশিদের বিক্ষোভ

সর্বশেষ আপডেট বুধবার, 16 জানুয়ারি, 2013 14:35 GMT 20:35 বাংলাদেশ সময়

বাংলাদেশে যুদ্ধাপরাধীদের বিচারের প্রশ্নে তুরস্ক যে ভূমিকা নিয়েছে তার প্রতিবাদ জানাতে লন্ডনে তুর্কী দূতাবাসের সামনে বিক্ষোভ করেছেন একদল বাংলাদেশি।

বিক্ষোভকারিরা বলেছেন, বাংলাদেশে ১৯৭১ সালে সংঘটিত মানবতার বিরুদ্ধে অপরাধের বিচারের যে প্রক্রিয়া চলছে, তাতে তুরস্ক সরকার নানাভাবে হস্তক্ষেপ করছে।

ইন্টারন্যাশনাল ক্রাইমস স্ট্রাটেজি ফোরাম নামের একটি সংগঠন এই বিক্ষোভের আয়োজন করে।

উল্লেখ্য, তুরস্কের প্রেসিডেন্ট আবদুল্লাহ গুল বাংলাদেশে মানবতা বিরোধী অপরাধে বিচারাধীন কয়েকজনকে ক্ষমা করা এবং ফাঁসি না দেয়ার অনুরোধ করে সম্প্রতি বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতির কাছে চিঠি দিয়েছেন।

একটি তুর্কী প্রতিনিধিদল কিছুদিন আগে ঢাকায় গিয়ে আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের কার্যক্রমও পরিদর্শন করে।

"১৯৭১ সালে স্বাধীনতা যুদ্ধের সময়ও তুরস্ক বাংলাদেশের বিপক্ষে অবস্থান নিয়েছিল। আজ যখন সেই যুদ্ধাপরাধের বিচার শুরু হয়েছে, তুরস্ক তখন আবারও সেই যুদ্ধাপরাধীদের পক্ষ নিল। এটা খুবই দুর্ভাগ্যজনক"

সৈকত আচার্য, ইন্টারন্যাশনাল ক্রাইমস স্ট্রাটেজি ফোরাম

বিষয়টি নিয়ে বাংলাদেশে যুদ্ধাপরাধীদের বিচারের দাবি আন্দোলনরত সংগঠনগুলোর মধ্যেও ক্ষোভের সৃষ্টি করেছিল।

কূটনৈতিক শিষ্টাচারের লঙ্ঘন

ইন্টারন্যাশনাল ক্রাইমস স্ট্রাটেজি ফোরামের মুখপাত্র সৈকত আচার্য বলেন, তুরস্কের প্রেসিডেন্ট যে চিঠি বাংলাদেশকে দিয়েছেন তা কূটনৈতিক শিষ্টাচারেরও লঙ্ঘন।

“তিনি যে দাবি জানিয়েছেন, তা বাংলাদেশের বিচার প্রক্রিয়ার ওপর হস্তক্ষেপের সামিল। বাংলাদেশের সার্বভৌমত্বের ওপরও হস্তক্ষেপ। আমরা মনে করি তুরস্কের সরকারের এই কাজের জন্য ক্ষমা চাওয়া উচিত।”

সৈকত আচার্য আরও বলেন, ১৯৭১ সালে স্বাধীনতা যুদ্ধের সময়ও তুরস্ক বাংলাদেশের বিপক্ষে অবস্থান নিয়েছিল। আজ যখন সেই যুদ্ধাপরাধের বিচার শুরু হয়েছে, তুরস্ক তখন আবারও সেই যুদ্ধাপরাধীদের পক্ষ নিল। এটা খুবই দুর্ভাগ্যজনক।

তুর্কী দূতাবাসের কেউ বিক্ষোভকারীদের সাথে সাক্ষাত করেনি। বিক্ষোভ চলাকালে তুর্কী দূতাবাসের ফটক আগাগোড়াই বন্ধ ছিল।

পরে বিক্ষোভকারীরা পুলিশের মাধ্যমে একটি স্মারকলিপি দূতাবাসে পাঠায়।

সম্পর্কিত বিষয়

BBC © 2014 বাইরের ইন্টারনেট সাইটের বিষয়বস্তুর জন্য বিবিসি দায়ী নয়

কাসকেডিং স্টাইল শিট (css) ব্যবহার করে এমন একটি ব্রাউজার দিয়ে এই পাতাটি সবচেয়ে ভাল দেখা যাবে৻ আপনার এখনকার ব্রাউজার দিয়ে এই পাতার বিষয়বস্তু আপনি ঠিকই দেখতে পাবেন, তবে সেটা উন্নত মানের হবে না৻ আপনার ব্রাউজারটি আগ্রেড করার কথা বিবেচনা করতে পারেন, কিংবা ব্রাউজারে css চালু কতে পারেন৻