BBC navigation

বাংলাদেশে সঙ্গীতশিল্পী সোহরাব হোসেন প্রয়াত

সর্বশেষ আপডেট বৃহষ্পতিবার, 27 ডিসেম্বর, 2012 11:12 GMT 17:12 বাংলাদেশ সময়
সোহরাব হোসেন

সোহরাব হোসেন

বাংলাদেশের নজরুলসঙ্গীত ও শাস্ত্রীয় সঙ্গীতের খ্যাতিমান শিল্পী সোহরাব হোসেন আর নেই।

বৃহস্পতিবার ভোর ৬টার দিকে রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।

তিনি বহুমূত্র, হৃদরোগ, ফুসফুস, কানের প্রদাহ ও বার্ধক্যজনিতসহ বিভিন্ন জটিলতায় ভুগছিলেন।

অসুস্থতার কারণে ৯১ বছর বয়সী সোহরাব হোসেনকে গত ২৯ নভেম্বর স্কয়ার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

১৯২২ সালের ৯ই এপ্রিল ভারতের পশ্চিমবঙ্গের নদীয়া জেলায় জন্ম নেওয়া সোহরাব হোসেন পাঁচ দশকেরও বেশি সময় ধরে সঙ্গীতের বিভিন্ন শাখায় বিচরণ করেছেন।

কলকাতা বেতারে প্রথম গান করার সুযোগ পান ১৯৪৬ সালে। ১৯৪৭ সালে দেশভাগের পরের বছর চলে যান ঢাকায়।

সঙ্গীতে অবদানের জন্য স্বাধীনতা পদক ও নজরুল একাডেমী পদকসহ বহু সম্মাননা পেয়েছেন সোহরাব হোসেন।

বাংলাদেশ বেতার ও টেলিভিশনের জন্মলগ্ন থেকেই তিনি এ দুটো মাধ্যমের সঙ্গে সম্পৃক্ত ছিলেন।

সোহরাব হোসেন ছায়ানটের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য ছিলেন। এছাড়া বুলবুল ললিতকলা একাডেমী, শিল্পকলা একাডেমী ও নজরুল একাডেমীতে শিক্ষকতা করেছেন দীর্ঘদিন।

সর্বশেষ শিক্ষক হিসাবে ছিলেন নজরুল ইনস্টিটিউটে।

দীর্ঘ সঙ্গীতজীবনে ওস্তাদ আলাউদ্দীন খাঁ, শচীন দেব বর্মন, অঞ্জলি মুখোপাধ্যায়, আব্বাস উদ্দিনসহ অনেক গুণীজনের সাহচার্য পেয়েছেন সোহরাব হোসেন।

সোহরাব হোসেনের প্রথম গানের অ্যালবাম বের হয় ১৯৪৮ সালে।

বাংলাদেশে নজরুল সঙ্গীত চর্চার বিকাশেও সোহরাব হোসেন গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছেন।

সোহরাব হোসেনের দুই ছেলে ও তিন মেয়ের মধ্যে রওশন আরা সোমা ও রাহাত আরা গীতি বাবার মতোই নজরুলসঙ্গীত শিল্পী।

সম্পর্কিত বিষয়

BBC © 2014 বাইরের ইন্টারনেট সাইটের বিষয়বস্তুর জন্য বিবিসি দায়ী নয়

কাসকেডিং স্টাইল শিট (css) ব্যবহার করে এমন একটি ব্রাউজার দিয়ে এই পাতাটি সবচেয়ে ভাল দেখা যাবে৻ আপনার এখনকার ব্রাউজার দিয়ে এই পাতার বিষয়বস্তু আপনি ঠিকই দেখতে পাবেন, তবে সেটা উন্নত মানের হবে না৻ আপনার ব্রাউজারটি আগ্রেড করার কথা বিবেচনা করতে পারেন, কিংবা ব্রাউজারে css চালু কতে পারেন৻